নির্বাচিত সংবাদ!

সোমবার, ২০ ফেব্রুয়ারী, ২০১২

ইসলামিক দৃষ্টিতে হস্তমৈথুন

হস্তমৈথুন, আত্মমৈথুন, স্বমেহন বা স্বকাম একটি যৌনক্রিয়া যাতে একজন ব্যক্তি নিজের যৌনাঙ্গ বা অন্যান্য কামোদ্দীপক অঙ্গপ্রত্যঙ্গকে হাত বা অন্য অঙ্গপ্রত্যঙ্গ বা বস্তু দ্বারা আলোড়ন করে কামোদ্দীপ্ত হওয়া বা বিশেষ করে রাগমোচনে (orgasm, অর্থা কামোদ্দীপনার চরম পর্যায়) পৌছানোকে বোঝায়মানুষ ছাড়াও নানা বন্য ও গৃহপালিত পশু হস্তমৈথুন করে থাকেহস্তমৈথুন মূলত স্বকাম ; তবে এতে মানুষ স্বীয় হাত-আঙ্গুলি ছাড়াও যৌনখেলনা যেমন কৃত্রিম যোনি বা কৃত্রিম শিশ্ন ব্যবহার করে থাকে

পারস্পরিক হস্তমৈথুন:
দুজন পুরুষ একে অন্যের লিঙ্গ নাড়াচাড়া করে বীর্যপাত করিয়ে দিলে একে বলা হয় পারস্পরিক হস্তমৈথুনতেমনি দুজন নারী পরস্পরের যোনিতে হাত তথা অঙ্গুলি চালনা করে রাগমোচন করলে তাও হবে পারস্পরিক হস্তমৈথুনপারস্পরিক হস্তমৈথুনে যেহেতু দুজন মানুষের মধ্যে মিথস্ক্রিয়া হয়ে থাকে তাই একে আর স্বকাম বা আত্মকাম বলা চলে না
হার, বয়স, ও লিঙ্গ:
হস্তমৈথুনের হার বিভিন্ন বিষয়ের ওপর নির্ভর করেকারো যৌন ইচ্ছা বা হরমোনের মাত্রা তা যৌন উত্তেজনা, যৌন অভ্যাস, স্বাস্থ্য এবং দৃষ্টিভঙ্গিকে প্রভাবিত করেই. হাইবি এবং জে. বেকার পরীক্ষা করে দেখেছেন যে কোনো স্থানের সংস্কৃতিও হস্তমৈথুনের হারকে প্রভাবিত করেএছাড়াও হস্তমৈথুনের সাথে কিছু চিকিসীয় কারণও জড়িত
মানুষের মধ্যে হস্তমৈথুনের হার নির্ণয়ের জন্য বিভিন্ন রকমের জরিপ ও গবেষণা হয়েছেআলফ্রেড কিনসের ১৯৫০-এর দশকের এক গবেষণায় বলা যায়, মার্কিন নাগরিকদের মাঝে ৯২% পুরুষ ও ৬২% নারী তাঁদের জীবনকালে অন্তত একবার হস্তমৈথুন করেছেন২০০৭ সালে যুক্তরাজ্যের মানুষের মাঝে করার একটি জরিপেও কাছাকাছি ফলাফল পাওয়া যায়জরিপে দেখা যায় ১৬ থেকে ৪৪ বছরের মধ্যে ৯৫% পুরুষ ও ৭১% নারী তাঁদের জীবনের যে-কোনো সময়ে অন্তত একবার হস্তমৈথুন করেছেনসাক্ষাকারের চার সপ্তাহ আগে হস্তমৈথুন করেছেন এমন পুরুষের হার ৭১% ও নারী ৩৭%অপর দিকে ৫৩% পুরুষ ও ১৮% নারী জানিয়েছেন যে, তাঁরা এই সাক্ষাকারের ১ সপ্তাহ আগে হস্তমৈথুন করেছেন
২০০৯ সালে নেদারল্যান্ড ও অন্যান্য ইউরোপীয় দেশের সাথে যুক্তরাজ্যেও বয়সন্ধি কালীন ছেলে-মেয়েদের কমপক্ষে প্রতিদিন হস্তমৈথুন করার জন্য উসাহ প্রদান করা হয়অর্গাজম বা রাগমোচনকে শরীরের জন্য উপকারী হিসেবে বিবেচনা করা হয়এছাড়া ইউরোপীয় ইউনিয়নভুক্ত দেশগুলোতে শিশু গর্ভবতীর ও যৌন সংক্রামক রোগের হারের প্রাপ্ত উপাত্ত লক্ষ্য করে, তা কমিয়ে আনতে এই কার্যক্রম হাতে নেওয়া হয়, এবং এটিকে একটি ভালো অভ্যাস হিসেবে উল্লেখ করা হয়
হস্তমৈথুন :
কী? আস্তাগফিরুল্লাহ, নাউজুবিল্লাহ মিন জালেকএমন নাপাক কথা কোন ইমানদার বান্দা মুখেও আনতে পারে নাহস্তমৈথুনের নাম শুনলে ইসলামপন্থীরা ঠিক এভাবেই রিএক্ট করে উঠবেনতবে আপনি তো আর ইসলামপন্থী নন, আমাদের মতোই দোষেগুণে গড়া সাধারণ মানুষসত্যি করে বলুন তো, আপনার অতীত জীবনে আপনি কি কখনও এই শয়তানি কাজটি করেন নি? কিংবা এখনও মাঝে মধ্যে করেন না? যদি আপনার উত্তর না বাচক হয়, তবে আপনি মানব প্রজাতির সেই বিরল দুই/এক পারসেন্ট ভাগ্যবান লোকদের অন্যতম যারা জীবনেও হস্তমৈথুন করে নাইবাদবাকী আটানব্বুই/নিরানব্বুই শতাংশ মানবসন্তান তাদের স্বীয় হস্তযুগলের সাথে বিবাহবন্ধনে আবদ্ধ হয়েছে এবং ব্যাভিচার করেছেআল্লাহপাক সেই সব নাফরমান বান্দাদের জন্যে কঠিন শাস্তির ব্যবস্থা করে রেখেছেন
প্রকৃতিতে আমরা দেখতে পাই, প্রজননক্ষম প্রতিটি প্রাণী মা স্টারবেশনের মাধ্যমে যৌন আবেগের উপশম ঘটিয়ে থাকেএ এমন এক সহজ, নিরাপদ এবং প্রাকৃতিক পদ্ধতি যার মাধ্যমে প্রাণীকুলের প্রতিটি প্রজাতি যৌনতৃপ্তি লাভ করতে পারেএ এক অতি সাধারণ যৌন আচরণ, বিধাতা যেদিন থেকে প্রাণীজগত সৃষ্টি করেছেন, সেদিন থেকেই এই তাগিদ প্রাণীদেহে এনকোড করে দিয়েছেন এবং প্রাণীগণ বিশ্বস্তভাবে প্রকৃতির এই নিয়মটি প্রতিপালন করে আসছেআপনার বিশ্বাস না হলে যে কোন চিকিসাবিদ কিংবা সেক্স থেরাপিস্টের কাছে জেনে নিতে পারেনতারা সাক্ষ্য দেবে যে এটি নেহায়েতই নির্দোষ একটি জৈব আচরণ, যা কখনও কখনও মানবদেহের উপকারেও আসতে পারেমানুষ যখন অত্যধিক মানসিক পীড়নের মধ্যে অতিবাহিত করে এবং আবেগ প্রশমনের আর কোন সহজ পদ্ধতি তার সামনে খোলা থাকে না, এই সহজলভ্য নির্দোষ পদ্ধতির মাধ্যম সে দেহমনের প্রশান্তি লাভ করতে পারেপাশ্চাত্য সমাজে আতি নিরীহ এই যৌন পদ্ধতিটি সাধারণের কাছে উওণ সেক্স নামে পরিচিতআজকাল অনেক চিকিসালয়ে স্পার্ম-ব্যাংক থাকে; হস্তমৈথুনের মাধ্যমেই সেখানে রোগীর শরীর থেকে স্পার্ম কালেকশন করা হয়ে থাকেঅথচ শারিয়ার বিধান অনুযায়ী নিরীহ এই সেক্সটি একবারে হারামআপনি যদি কখনও গোপনে গোপনে এই ভয়ঙ্কর কাজে নিয়োজিত থাকেন, মনে রাখবেন যে সর্বশক্তিমান আল্লাহর সিক্রেট পুলিশবাহিনী অর্থা ফেরেশতাগণ আপনার প্রতিটি আচরণ রেকর্ড করে রাখছেআপনি নিজের সাথে নিজে ব্যভিচার করছেন, তার প্রতিটি ইভেন্ট ভিডিও করে রাখছে ফেরেশতারারোজ হাশরের দিন তা আপনার সামনে উপস্থাপিত করা হবে এবং এই জঘন্য কাজের জন্যে কঠিন শাস্তি পেতে হবে আপনাকেপরকালে আপনি যে শাস্তি পাবেন তা নিশ্চিত, কারণ ফেরেশতাদের ভিডিও চিত্রে আপনার অপরাধ সন্দেহাতীতভাবে প্রমাণিত হবেতবে শারিয়া-দারোগা ইহকালে কীভাবে আপনাকে শাস্তি দেবে সেই বিষয়ে আমি কিঞ্চি ধন্দে আছিলোকে অপকর্মটি করে থাকে অত্যন্ত গোপনেশারিয়ার দৃষ্টিশক্তি যদি শকুনের মতো প্রবলও হয়, তথাপী প্রতিটি লোকের টয়লেটে কিংবা বাথরুমে তার মরাল পুলিশ বাহিনী পাঠানো কোন মতেই সম্ভব নয়এমতবস্থায় ভূপৃষ্ঠে হস্তমৈথুনজনিত পাপের শাস্তি কার্যকর করার মতো শক্তি শারিয়ার আছে বলে মনে হয় নাতাই বলে আপনার নিশ্চিন্ত হওয়ার কোন কারণ নাই, উওণ সেক্স পালনরত সেক্স-ম্যানিয়াকদের জন্যে পরকালে অপেক্ষা করে আছেন সংক্ষুব্ধ আল্লাহ স্বয়ংকঠিন শাস্তি দেবেন তিনিসেই শাস্তির ধরণ কী হবে তা কি আপনি জানতে চান? ইসলামের দিকপালরা কঠিন গবেষণা করে আবিস্কার করেছেন যে এই জঘন্য ব্যভিচারের প্রায়শ্চিত্তস্বরূপ পুনরুত্থানের দিন প্রতিটি মৈথুনকারীর হাত গর্ভবতী হয়ে কবর থেকে বেরুবে! মাশায়াল্লাহ! কী অসীম কুদরত তার!!
আপনার সংকীর্ণ জ্ঞানে আপনি এতদিন জেনে এসেছেন যে শুধুমাত্র স্ত্রী-প্রজাতিই গর্ভধারণ করতে পারেপুরুষ মানুষ, বিশেষ করে তার হাত গর্ভবতী হয়, এই থিওরী আপনার কাছে অভিনব বলে মনে হতে পারেতবে মনে রাখবেন, আল্লাহপাক সর্বশক্তিমান, তার পক্ষে সবই সম্ভবকেন, তিনি কি পুরুষ মানুষের ছোঁয়া ছাড়া কুমারীকে মা বানান নি (বিবি মরিয়ম)? তিনি কি মেনোপজে যাওয়া অশীতিপর বৃদ্ধাকে গর্ভবতী করেননি (জাকারিয়া নবীর স্ত্রী)? হাত কেন, তিনি ইচ্ছে করলে আপনার গায়ের লোমের মধ্যেও গর্ভসঞ্চার ঘটিয়ে দিতে পারেনব্যক্তিগতভাবে এই থিওরী আমি সর্বান্তকরণে বিশ্বাস করিকিন্তু একটি হিসেব আমি কিছুতেই মেলাতে পারছি নাপুরুষ মৈথুনকারীদের হাত গর্ভবতী হলো ঠিক আছেকিন্তু মৈথুনকারী যদি স্ত্রীলোক হয়? তার বেলায় কী হবে? তলপেটের মতো তার হাতটিও কী ফুলে উঠবে? ছ্যা ছ্যা, সে বড় বিশ্রী ব্যপার হবেআপনি হয়তো ভাবছেন, এ কোন ধরণের অপঅশ্লীল প্রশ্ন? স্ত্রীলোক আবার মৈথুনকারী হয় কীভাবে? স্ত্রীলোক কি কখনও হস্তমৈথুন করতে পারে? হস্তমৈথুনের জন্যে সন্মুখভাগে যে দণ্ডটি প্রয়োজনীয়, স্ত্রীদেহে তো তা নাই? আপনার সন্দেহের জবাবে জেনে নিন যে স্ত্রীলোকেরাও হস্তমৈথুন করে, যদিও তার প্রক্রিয়া পুরুষের চেয়ে ভিন্নতরশেরি হাইট নাম্নী এক বিখ্যাত যৌনগবেষক মহিলাদের মাস্টারবেশনের উপর এক নিবিড় জরীপ পরিচালনা করেনএই জরিপ থেকে যে তথ্য বেরিয়ে আসে তাতে দেখা যায় যে সার্ভেকৃত মহিলাদের মধ্যে ৮২% ভাগ স্বীকার করেছে যে তারা কোন না কোন সময়ে মাস্টারবেশন করেছে কিংবা এখনও করে৮২ শতাংশের এই ফিগারের সাথে আরও আট/দশ শতাংশ যোগ করা বোধ হয় অন্যায় হবে না, কারণ নিশ্চিতভাবেই কিছু মেয়ে আছে যারা এই বিব্রতকর প্রশ্নের সঠিক জবাব দেয় নি কিংবা মিথ্যা জবাব দিয়েছেতাহলে দেখা যাচ্ছে, মেয়েদের মধ্যেও শতকরা নব্বুই জন মাস্টারবেশন করে যৌনতৃপ্তি ঘটায়। (পৃ-৫৯, শেরি হাইট, দ্য হাইট রিপোর্টঃ আ ন্যাশনওয়াইড ষ্টাডি অব ফিমেল সেক্সুয়ালিটি, ১৯৭৭, প্রকাশক-সুমিট বুকস, নিউ ইয়র্ক)। (উল্লেখ্য, গবেষক শেরি হাইট নিজেও একজন মহিলা)
মেয়েরা কীভাবে মাস্টারবেশন করে থাকে তার উপর আলোকপাত করতে যেয়ে শেরি লিখেছেন মেয়েদের সেক্সুয়ালিটি বুঝার জন্যে তারা কীভাবে মাস্টারবেশনের মাধ্যমে চরম পুলক (অরগাজম) লাভ করে সেটি একটি গুরুত্বপূর্ণ বিষয়যেহেতু কাজটি ঘটে থাকে অত্যন্ত গোপনে এবং কীভাবে কাজটি করতে হবে তা কেউ তাকে শিখিয়ে দেয় নি, সুতরাং মাস্টারবেশনকে একটি নিখাদ জৈব আচরণ হিসেবে বিবেচনা করাই সঙ্গতপ্রাণীকুল যে কয়টি সহজাত আচরণ প্রদর্শন করে থাকে, মাস্টারবেশন নিঃসন্দেহে তাদের অন্যতম
তিনি আরও লিখেছেন মাস্টারবেশনের মাধ্যমে মেয়েরা অতি সহজে যখন খুশী তখন চরম পুলক আহরণ করতে পারেএ থেকে প্রমাণিত হয় যে কীভাবে নিজের দেহটিকে উপভোগ করতে হয় নারীরা তা জানে, কীভাবে করতে হবে তা জানার জন্যে কাউকে জিজ্ঞেস করারও দরকার নেই তাদেরনারীজাতির এই সেক্সুয়াল আচরণ নেহায়েতই প্রাকৃতিক, কোন প্রব্লেম নেই এতেপ্রব্লেম যদি কোথাও থেকে থাকে তা আছে সেক্সসম্পর্কিত সমাজের প্রচলিত সংজ্ঞায়, যে সংজ্ঞা সমাজই নির্ধারণ করেছে এবং নারীদের উপর চাপিয়ে দিয়েছেআমাদের সুগুপ্ত সেক্সুয়ালিটিকে শেয়ার করে আমরা কীভাবে মাস্টারবেশন করি সেকথা প্রকাশ করলে ফিমেল-সেক্সুয়ালিটি সম্পর্কে সমাজের ধারণার একধাপ অগ্রগতি হবে; সেক্স এবং শারীরিক সম্পর্ক সমন্ধে আমাদের জানা প্রথাগত ধারণার পরিবর্তন ঘটবে। (পৃ-৫৯-৬০)
উপরোক্ত সমীক্ষা থেকে মাস্টারবেশনের ভালমন্দ সম্পর্কে বিজ্ঞানসম্মত ধারণা পাওয়া যাযশেরির উপরোক্ত গবেষণাপত্র অত্যন্ত সঠিক ও বিশ্বস্ত হিসেবে বিজ্ঞানমহলে সমাদৃত, মাস্টারবেশনের উপর এত প্রামান্য গবেষণাপত্র আজ পর্যন্তও কেউ রচনা করতে পারেন নি, এমন কি মাস্টার এন্ড জনসনও ননপরীক্ষিত এইসব বৈজ্ঞানিক সত্য-উপাত্তকে মিথ্যে বলে উড়িয়ে দিয়ে ইসলাম কীভাবে ঘোষণা করে যে মাস্টারবেশন একটি জঘন্য ক্রাইম, এর জন্যে মহাশাস্তি নির্ধারিত হয়ে আছে?
শেরির গবেষণা সত্যের উপর প্রতিষ্ঠিতঅপরপক্ষে ইসলামী শাস্ত্র বিধান দিয়ে রেখেছে উওণ সেক্সকারীরা ম্যানিয়াক, রোজ হাশরের দিন তারা গর্ভিনী দুখান হাত নিয়ে কবর থেকে বেরুবেমেয়েদের কী হবে, ডাবল প্রেগনান্সির ভার নিয়ে তারা কবর থেকে বেরুবে কিনা, সে সম্পর্কে ইসলামী শাস্ত্রবিদরা নীরবএ প্রসঙ্গে দক্ষিণ আফ্রিকার জনৈক মশহুর মুফতির ফতোয়া উপভোগ করুন পাঠক
ইসলামিক কোয়েশ্চেন এন্ড এ্যনসার অনলাইন, মুফতি ইবরাহীম দেশাই
দারুল ইফতাহ, মাদ্রাসা ইনামিয়াহ
কেপ টাউন, দক্ষিন আফ্রিকা
ভয়য়হঃ//াাা.মঢ়লথশ.য়ধ/ধবম-দমষ/থঢ়রমশথশ/থঢ়র.হল?ক্ষ=১৬৫&থধয়=ংমপা
হযরত আনাস (রাঃ) বর্ণনা করেছেন যে রাসুলুল্লাহ (দঃ) বলেছেন যে ব্যক্তি স্বীয় হস্তের সহিত বিবাহবন্ধনে আবদ্ধ হয় (অর্থা মাস্টারবেশন করে), সে অভিশপ্ত’ (তফসির মাজহারি, ভলিউম-১২, পৃ-৯৪)
সাইদ বিন জুবায়ের বর্ণনা করেছেন যে রাসুলুল্লাহ (দঃ) বলেছেন আল্লাহতায়ালা এক দল লোককে শাস্তি দিবেন, কারণ তারা নিজেদের যৌনাঙ্গের সাথে খেলা করত
আতা (রাঃ) বলেন – ‘কিছুসংখ্যক লোক এমন ভাবে পুনরুত্থিত হবে যেন তাদের হস্তদ্বয় গর্ভবতী, আমার মনে হয় তারা সেই সব লোক যারা হস্তমৈথুন করে
উপরোক্ত শাস্তির কথা বিবেচনা করে আমাদের মোমেন ও মোমেনা বান্দাদের কি উচি নয় এই ঘৃণ্য কাজ থেকে বিরত থাকা? যদিও আমি প্রায় নিশ্চিত যে শারিয়ার রক্তচক্ষু উপেক্ষা করেও তাদের অধিকাংশ এই সহজ অনন্দদায়ক অভ্যাসটি আগের মতোই চালিয়ে যাবেনজীবন সংগ্রামে নিরন্তর ডুবে থাকা একজন আদম সন্তানের কাছে আনন্দ আহরণের এমন সহজ পদ্ধতি আর কী আছে, যা বছরের প্রতিটি দিন ইচ্ছে হলেই আপনার হাতের মুঠোয় ধরা দেয় এবং কারও বিন্দুমাত্র ক্ষতি করে না? শারিয়া এই অভ্যাসকে ভয়ঙ্কর ও ঘৃণ্য বলে চিহ্নিত করেছে, আমার মনে হয় মোমেনদের ক্কালব হতে এই শয়তানি ওয়াছওয়াছা মুছে ফেলে শারিয়ার জয়ধ্বজা উড়াতে হুজুরদের উচি কুইট স্মোকিংএর অনুরূপ একটি ক্যম্পেইন চালু করাকুইট মাস্টারবেশনতারপরেও আমি বলব, কুইট স্মোকিং ক্যাম্পেনের মতোই কুইট মাস্টারবেশনআন্দোলনও নিদারুনভাবে ব্যর্থ হবেকারণ জীবদেহে আদিম উত্তেজনাটি একবার জেগে উঠলে তা অবদমিত করে রাখা প্রায় অসম্ভবই বলা চলেসাধে কি লোকে বলে-উত্থিত লিঙ্গ আর ভেজা যোনি বিবেকের ধার ধারে নামাপ করবেন পাঠক, এরূপ অশ্লীল শব্দ ব্যবহার করার জন্যে আমি আন্তরিকভাবে দুঃখিতকী করব, প্রাণীর সহজাত ও প্রবলতম এই জৈবতাড়নার স্বরূপ সঠিকভাবে প্রকাশ করার এর চেয়ে ভাল কোন শব্দ আমি আর খঁুজে পেলাম নাএ এমন এক তাড়না, যার সামনে পৃথিবীর কোন যুক্তি কোন শক্তিই দাঁড়াতে পারে নাএমন যে সর্বত্যাগী সন্নাসী, ঘরসংসার ত্যাগ করে জঙ্গলে পলায়ন করেছে, সেও এই কালভূজঙ্গের হাত থেকে নিস্কৃতি পায় নাকম দুঃখে কি আর লালন বলেছেন- ঘর ছেড়ে সে বনেতে যায়, স্বপ্নদোষ কি হয় না তথায়’? ধুমপান করলে ক্যান্সারের ভয় আছে এটি জেনেও যেমন লোকে ধুমপান করে, ঠিক তেমনিভাবে পরকালে আল্লাহ তাদের জন্যে ভীষণ শাস্তির ব্যবস্থা করে রেখেছেন সেটা জেনেও লোকে মাস্টারবেট করবেইখাদ্য সংগ্রহের জন্যে প্রাণী সবকিছুই করতে পারেখাদ্যের পর প্রাণীর দ্বিতীয় প্রধান যে তাড়না তা সেক্সসেক্সের তাড়নাশত ভয় দেখিয়েও মানুষকে এই জৈবিক প্রেরণা থেকে দূরে রাখা যাবে না
মোল্লাদের শত চোখ রাঙানি সত্ত্বেও যেসব মুসলমান এই ঘৃণ্য অভ্যাসটি এখনও পরিত্যাগ করতে পারেন নি, তাদের জন্যে গোটাকয়েক শারিয়া আইন নিম্নে পেশ করা হলোভালভাবে পড়ে দেখুন, আপনার সবকিছু মনে হয় একেবারে শেষ হয়ে যায নিনিয়মগুলি ফলো করলে কোন ফাঁক-ফোকর দিয়ে আপনি রেহাই পেয়েও যেতে পারেন; আপনার হস্তযুগল গর্ভবতী অবস্থায় সর্বসমক্ষে প্রকাশিত হবে, সেই নিদারুণ লজ্জার হাত থেকে আপনি বেঁচে যেতেও পারেনচেষ্টা করতে দোষ কি?
মাষ্টারেবেশন
গোসল ফরজ…(রেফারেন্স-৮, পৃ-৭৯)
ই-১০.১- নাপাকি দুর করার জন্যে পুরুষের জন্যে গোসল ফরজ হয়, যখন..
১- তার শরীর হতে বীর্য নির্গত হয়;
২- অথবা তার লিঙ্গাগ্র যোনির ভেতর প্রবেশ করে;
এবং স্ত্রীলোকের জন্যে ফরজ হয়, যখন..
১- তার যোনি হতে সেক্সুয়াল ফ্লুইড নির্গত হয় (সেক্সুয়াল ফ্লুইডের সংজ্ঞা নীম্নে প্রদত্ত হলো);
২- তার যোনির ভেতর লিঙ্গাগ্র প্রবেশ করে;
৩- এবং তার ঋতুস্রাব শেষ হযে যায়;
৪- সন্তানপ্রসবের পর পোস্টন্যাটাল লকিয়া’ (বিশেষ ধরনের স্রাব) বন্ধ হয়, কিংবা (শুকনো প্রসবের ক্ষেত্রে) সন্তান ভুমিষ্ট হয়
(এনঃ পুরুষের বীর্য বা স্পার্ম এবং মেয়েদের সেক্সুয়াল ফ্লুইডের প্রতিশব্দ হিসেবে আরবীতে মানিইয়াশব্দটি ব্যবহৃত হয়েছেঅর্থা যৌনসঙ্গমকালে চরম পুলক লাভের সময় উভয়ের যৌনাঙ্গ হতে স্পার্ম বা সেক্সুয়াল ফ্লুইড যাই নির্গত হোক, আরবী ভাষায় তার সাধারণ নাম মানিইয়া)
উপবাস ভঙ্গ..(প্রাগুক্ত, পৃ-২৮৪-২৮৬)ঃ
ম.১.১৮(৯) যৌনসঙ্গম (ইচ্ছাকৃত সঙ্গমের ক্ষেত্রে যদি অর্গাজম নাও হয় তবুও), অথবা অযৌন স্থানের সাথে ঘর্ষণজনিত কারণে কিংবা মাস্টারবেশনজনিত কারণে অর্গাজম (এই ধরণের অর্গাজম অবৈধ উপায়ে হোক, যেমন নিজ হস্তে কৃত, কিংবা বৈধ উপায়ে হোক, যেমন কোন ব্যক্তির স্ত্রীর হস্তে কৃত, তাতে কিছু আসে যায় না, রোজা ভঙ্গ হবেই)
১১.১৯(৩) অর্গাজম, তাহা স্পর্শজনিত কারণে হোক (যথা-চুম্বন, আলিঙ্গন, একে অপরের উরুর উপর শুয়ে থাকা কিংবা অন্য কোন উপায়) অথবা মাষ্টারবেশনের কারণে হোক;
সমগ্র কোরাণ সার্চ করেও আমি মাস্টারবেশন শব্দটি কোথাও খুজে পাইনিসুতরাং মাস্টারবেশন পুরোপুরি হারাম, সে সম্পর্কে আমি শিওর নইতবে কোন কোন মোল্লা নিম্নে বর্ণিত সুরা মুমেনুনের (২৩ঃ৫-৭) নং আয়াতের উল্লেখ করে মাস্টারবেশনকে হারাম বলে সিদ্ধান্ত দিয়ে থাকেনতাদের এই ব্যখ্যা সঠিক কিনা তার ভার আমি মৈথুনকারীদের হাতে ছেড়ে দিলামতারাই বিবেচনা করে সিদ্ধান্ত নিন, কাজটি তারা চালিয়ে যাবেন, না হারাম ভেবে এ থেকে বিরত থাকবেন?
০২৩.০০৫- যারা নিজেদের যৌন অঙ্গকে সংযত রাখে
০২৩.০০৬- নিজেদের পত্নীগণ এবং অধিকারভুক্ত দাসীগণ ব্যতীত, এতে তারা নিন্দনীয় হবে না
০২৩.০০৭- সুতরাং কেউ এদেরকে ছাড়া অন্যকে কামনা করলে তারা হবে সীমালঙ্ঘনকারী
কোরাণ ছেড়ে শারিয়া বিধি পর্যালোচনা করি এবারশারিয়াবিশেষজ্ঞ ইসলামি জুরিস্টদের মতে উওণ সেক্স পুরোপুরি হারাম
অবৈধ—-ডব্লিও৩৭.১ (রেফারেন্স-৮, পৃ-৯৩২)
ডব্লি&ৗ৮৭২২;ও৩৭.১ (এন)ঃ নিজের হাতের সাথে মৈথুন করা অবৈধইমাম শাফেয়িকে হস্তমৈথুনের প্রেক্ষিতে উপরে বর্ণিত আল্লাহপাকের বাণী (২৩ঃ৫-৭) সম্পর্কে প্রশ্ন করা হলে তিনি বলেন উপরোক্ত আয়াতগুলিতে যার যার সাথে সেক্স বৈধ করা হয়েছে, তার বাইরে যে কোন ধরণের সেক্স নিষিদ্ধ; এদের বাইরে আর কারও সাথে সেক্স বৈধ এই ধারণা শেষের আয়াতদ্বারা পুরোপুরি প্রত্যাখ্যান করা হয়েছে
Source:1.http://bn.wikipedia.org/wiki/%E0%A6%B9%E0%A6%B8%E0%A7%8D%E0%A6%A4%E0%A6%AE%E0%A7%88%E0%A6%A5%E0%A7%81%E0%A6%A8
2.http://www.bangarashtra.net/%E0%A6%97%E0%A7%8D%E0%A6%B0%E0%A6%A8%E0%A7%8D%E0%A6%A5%E0%A6%BE%E0%A6%97%E0%A6%BE%E0%A6%B0/%E0%A6%A7%E0%A6%B0%E0%A7%8D%E0%A6%AE-%E0%A6%AC%E0%A6%BF%E0%A6%B7%E0%A7%9F%E0%A6%95-%E0%A6%97%E0%A7%8D%E0%A6%B0%E0%A7%8D%E0%A6%B0%E0%A6%A8%E0%A7%8D%E0%A6%A5/389-%E0%A6%87%E0%A6%B8%E0%A6%B2%E0%A6%BE%E0%A6%AE%E0%A7%87-%E0%A6%95%E0%A6%BE%E0%A6%AE-%E0%A6%93-%E0%A6%95%E0%A6%BE%E0%A6%AE%E0%A6%95%E0%A7%87%E0%A6%B2%E0%A6%BF?showall=&start=6