রবিবার, ১৯ জুন, ২০১১

ইসলাম বিষয়ক সাধারণ জ্ঞান-০১

সাধারণ জ্ঞান(ইসলাম)-১
. সবচেয়ে মারাত্মক গুনাহ হচ্ছে-শিরক।
. আল কুরআনের সুরক্ষিত স্থান-লাওহে মাহফুজ।
. রমজানের রোযা ফরজ হয়-দ্বিতীয় হিজরিতে।
. ইসলামের প্রথম মুয়াজ্জিন-হযরতর বেলাল (রা)।
. খনিজ সম্পদের যাকাতের হার-২০%।
. আল্লাহর ইচ্ছায় যেকোনো রুপ ধারণ করতে পারে-ফেরেশতাগণ।
. ইসলামের প্রথম শিক্ষা প্রতিষ্ঠান-দারুল আবকাজ।
. বাইতুল মাল প্রতিষ্ঠা করেন-হযরত মুহাম্মদ (স)।
. সূরা ফাতিহার সাথে অন্য সূরা মিলানো-ওয়াজিব।
১০. আল্লাহ্ মানুষ সৃষ্টি করেছেন-তাঁর ইবাদত করার জন্য।
১১. ইসলামের দৃষ্টিতে গীবত করা-হারাম।
১২. জামাতে নামাজ পড়া-ওয়াজিব।
১৩. ইব্রাহিম (আ)-এর পিতার নাম-আযর।
১৪. আযান ও ইকামত নেই-ঈদের নামাজে।
১৫. আল কুরআনের সর্ববৃতৎ সূরা বাকারা।

সাধারণ জ্ঞান(ইসলাম)-২

১. মুসলিম জাতির পিতা-ইব্রাহীম (আ)।
২. “লা ইলাহা ইল্লাল্লাহু” দ্বারা ঘোষণা করা করা হয়েছে-তাওহীদের।
৩. রাসূল প্রেরণ করার মূল উদ্দেশ্য-আল্লাহর দ্বীনকে বিজয়ী করা।
৪. মানুষের ইবাদাতের মূল লক্ষ-আল্লাহর সন্তুষ্টি অর্জন।
৫. আল্লাহ্ মানুষ সৃষ্টি করেছেন-তাঁর ইবাদত করার জন্য।
৬. আল্লাহর প্রেরিত কিতাবের ওপর বিশ্বাস করা-ফরজ।
৭. প্রথম নাযিলকৃত আয়ত সংখ্যা-৫টি।
৮. কুরআনের মা বলা হয়- সূরা ফাতিহাকে।
৯. পবিত্র কুরআন মাজীদ দেখে পড়াকে বলা হয়-নাযিরা তেলাওয়াত।
১০. যুবকদের মধ্যে সর্ব প্রথম ইসলাম ধর্ম গ্রহণ করেন-হযরত আলী (রা)।
১১. নবী ও রাসূলের পর সবচেয়ে বেশি সম্মান পাওয়ার যোগ্য-মাতা।
১২. বিবাহের রুকন দুটি- ইজাব ও কবুল।
১৩. সকল গুনাহ্ থেকে তওবা করা-ফরজ।
১৪. কিবলা পরিবর্তন হয়-দ্বিতীয় হিজরীতে।
১৫. আমানতের খিয়ানত করা- মুনাফিকের লক্ষণ।

সাধারণ জ্ঞান(ইসলাম)-৩

. মানুষের আমলনামা লিপিবদ্বকারী ফেরেশতা হচ্ছে-কিরামান কতেবিন।
. পুরুষকে তিন টুকরা কাপড় দিয়ে কাফন দেয়া- সুন্নত।
. দ’বার বিসমিল্লাহ আছে-সূরা নামল-এ।
. ইসলামের পঞ্চম খলিফা- ওমর বিন আবদুল আজিজ (র)।
. মরা মাছ খাওয়া-হালাল।
. সালাত হচ্ছে মুমিনদের জন্য-মি’রাজ স্বরূপ।
. হত্যা অপেক্ষা খারাপ-ফিতনা।
. তওবা করার অর্থ হচ্ছে- অনুতপ্ত হয়ে আল্লাহর পথে ফিরে আসা।
. মানব জাতির মধ্যে সর্বশ্রেষ্ঠ উম্মত-উম্মতে মুহাম্মদ।
১০. সর্বপ্রথম ইসলামী মুদ্রা প্রচলন করেন-হযরত ওমর (রাঃ)।
১১. মুমিনদের যুদ্বে হাফিজে কুরআন শহীদ হন-৭০ জন।
১২. রাসূল (স) মদীনায় হিজরত করেন নবুয়াতের-দ্বাদশ বছরে।
১৩. বদরের যুদ্ব সংঘটিত হয়-৬২৪ সালে।
১৪. আত্মীয়দের পর হক বেশি-প্রতিবেশীর।
১৫. আল কুরআনে আলোচিত নবীর সংখ্যা-২৫ জন।

Previous Post
Next Post
Related Posts

0 comments: